পুলিশ পরিচয়ে ভাই-বোনকে তুলে নিয়ে মুক্তিপণ নিল ছাত্রলীগ-যুবলীগ

পুলিশ পরিচয়ে ভাই-বোনকে তুলে নিয়ে মুক্তিপণ নিল ছাত্রলীগ-যুবলীগ

71
0
SHARE

লক্ষ্মীপুরে পুলিশ পরিচয়ে প্রবাসীর বাড়ি থেকে ভাই-বোনকে তুলে নিয়ে ছাত্রলীগ-যুবলীগ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মুক্তিপণ আদায় করার অভিযোগ উঠেছে।
অপহরণের সময় বসতঘরে ভাংচুর, নগদ ২৬ হাজার টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নেয়া হয় বলেও অভিযোগ রয়েছে।
সদর উপজেলার চরশাহী ইউনিয়নের তিতারকান্দি গ্রামের ওমান প্রবাসী আলাউদ্দিন রাজুর বাড়িতে মঙ্গলবার গভীর রাতে এ ঘটনা ঘটে।
এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে যুবলীগকর্মী আদনানকে আটক করেছে পুলিশ। সে ওই এলাকার বাহার মাস্টারের ছেলে।
খবর পেয়ে বুধবার বিকেলে জেলা সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় তিনি ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার, এলাকাবাসী ও সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলেন।
প্রবাসীর স্ত্রী কাজল রেখা জানায়, বড় বোন মিনোয়ারা বেগমের ছেলে রকি (২৪) ও মেয়ে মাহিনুর (৩০) তার বাড়িতে বেড়াতে আসে। রাতে খাবার খেয়ে তারা ঘুমিয়ে পড়লে ওই এলাকার ফাহাদের নেতৃত্বে আদনান, রোকন, পিয়াস ও হৃদয়সহ যুবলীগ-ছাত্রলীগের নেতাকর্মী পুলিশ পরিচয় দিয়ে রাত ১টার দিকে দরজা ভেঙে তার ঘরে ঢুকে।
এ সময় তারা আলমিরার তালা ভেঙে নগদ ২৬ হাজার টাকা, স্বর্ণালংকার, মোবাইলফোন সেট লুট করে নেয়। বাধা দিতে গেলে ঘরে ভাংচুর চালানো হয়।
তিনি আরও জানায়, যাওয়ার সময় সন্ত্রাসীরা তার বোনের ছেলে ও মেয়েকে অস্ত্রের মুখে তুলে আদনানের বাড়িতে নিয়ে যায়। পরে সন্ত্রাসীরা মুক্তিপণ দাবি করে। একপর্যায়ে সন্ত্রাসীদের ১০ হাজার টাকা দিলে বুধবার সকালে তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়।
চরশাহী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল করিম রিয়াজ বলেন, ‘ঘটনাটি দুঃখজনক। এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে খোঁজ নিয়ে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে।’
জানতে চাইলে জেলা সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) মো. নাসিম মিয়া বলেন, এ ঘটনায় এক যুবককে আটক করা হয়েছে। জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY